আশুলিয়ায় র‌্যাব অভিযানে আটক তারিকুলকে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে মুক্তি

আগের সংবাদ

আশুলিয়ায় বাসের ধাক্কায় অটোরিকশা চালক নিহত; বাস আটক

পরের সংবাদ

আশুলিয়ায় নিহত জঙ্গীর স্ত্রী ও তিন শিশুকে থানায় হস্তন্তর; দুইটি মামলা দায়ের

হাসান ভূঁইয়া

প্রকাশিত :৭:০১ অপরাহ্ণ, ০৯/১০/১৬

এক্সপ্রেস প্রতিবেদক:

আশুলিয়ায় র‌্যাবের অভিযানে নিহত নব্য জেএমবি ও অর্থ যোগানদাতা আব্দুর রহমান আইনূলের স্ত্রী ও তিন সন্তানসহ বিভিন্ন আলামত আশুলিয়া থানায় হস্তান্তর করেছে র‌্যাব-৪ এর নবীনগর ক্যাম্প। এঘটনায় র‌্যাব ৪ এর নবীনগর ক্যাম্পের ডিএডি হুমায়ন কবীর বাদী হয়ে নিহত জঙ্গির স্ত্রীকে আসামী করে দুটি মামলা দায়ের করে।

রবিবার বিকেল ৫টা ৪০ মিনিটে র‌্যাবের পক্ষ থেকে হুমায়ন আশুলিয়া থানায় অস্ত্র আইন এবং সন্ত্রাসদমন ও বিস্ফোরক আইনে মামলা দুটি করে। প্রাথমিক ভাবে শাহনাজ আক্তার রুমির জঙ্গির সাথে সম্পৃক্ততা থাকার তার বিরুদ্ধে মামলাটি দায়ের করা হয়।

র‌্যাব ৪ এর নবীনগর ক্যাম্পের অধিনায়ক মেজর মাসুদুর রহমান জানান, শনিবার বিকেলে আশুলিয়ার বাইপাইল এলাকায় একটি বাড়িতে অভিযান চালিয়ে বিভিন্ন ধরনের অস্ত্র, বিস্ফোরকসহ গুরত্বপূর্ণ নথি উদ্ধার করে। পরে বাড়িটি থেকে জঙ্গির মূল অর্থ যোগানদাতা আব্দুর রহমানের স্ত্রী শাহনাজ আক্তার রুমি ও তার তিন সন্তানকে র‌্যাব হেফাজতে নেওয়া হয়ে। সেখানে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে  রুমির জঙ্গির সাথে সম্পৃক্ততা থাকার তথ্য পাওয়া যায়। এঘটনায় জিজ্ঞাসাবদ শেষে তাকে বিকেলে আশুলিয়া থানায় হস্তন্তর করা হয়। পরে শাহনাজ আক্তার রুমিকে আসামী করে  অস্ত্র আইন ও সন্ত্রাসদমন ও বিস্ফোরক আইনে দুটি মামলা দায়ের করা হয়। এদিকে বাড়ির কেয়ারটেকার তারিকুল ইসলামকে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ছেড়ে দেয়া হয়েছে বলেও র‌্যাব জানান।

ashulia-terror-wife-pic-2

উল্লেখ্য, শনিবার বিকেলে আশুলিয়ার ৬তলা একটি বাড়িতে র‌্যাব-৪ এর একটি টিম অভিযান চালায়। এসময় নব্য জেএমবি আব্দুর রহমান ৫তলা থেকে লাফিয়ে পালানোর সময় আহত হয়। পরে তাকে উদ্ভার করে এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত সারে ১০টার দিকে মারা যায়।এসময় ৫তলায় কক্ষগুলো তল্লাশি করে ৩০লক্ষ টাকা, অস্ত্র, বিস্ফোরক,গুরুত্বপূর্ণ নথি পাওয়া যায়। পরে বাড়িটিথেকে আব্দুর রহমানের স্ত্রী শাহনাজ আক্তার রুমি সহ তিনটি শিশু সন্তান লাবন্য(১১), তাহমিদ(৭), জাওয়াত(৫) কে র‌্যাব হেফাজতে নেওয়া হয়।