সাভারে তরুণী ধর্ষণের শিকার

প্রতীকী ছবি
Print Friendly, PDF & Email

নিজস্ব প্রতিবেদক: সাভারে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে এক তরুণীকে ধর্ষণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় গত বুধবার সাভার মডেল থানায় মামলা করেন ওই তরুণী।

বৃহস্পতিবার ভোরে হেমায়েতপুর আর্জেন্টপাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত কাউছার ইসলাম শাহীনকে (৩০) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

আটক শাহীন পিরোজপুরের ভান্ডারিয়ার হেতালিয়া চরখালী গ্রামের হাফেজ আবদুস ছালামের ছেলে।

অভিযোগে সূত্রে জানা যায়, উভয় সাভার হেমায়েতপুরের আর্জেন্টপাড়ার আসলামের বাড়ির ভাড়াটিয়া, একই ফ্ল্যাটের মধ্যে আলাদা আলাদা কক্ষে থাকার সুবাদে ভুক্তভোগী তরুণীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে শাহীন। এরই ধারাবাহিকতায় বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে সে দীর্ঘদিন ধরে ওই তরুণীকে প্রায় প্রতিরাতেই ধর্ষণ করে আসছিল। এরই মধ্যে সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন ওই তরুণী। পরে শাহীনকে বিয়ের জন্য চাপ দেওয়া হলে বিয়েতে রাজি না হওয়ায় থানায় লিখিত অভিযোগ দেন তরুণী।

সাভার মডেল থানার ওসি এ এফ এম সায়েদ জানান, ‘ভুক্তভোগী তরুণীর অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে শাহীনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এছাড়া অভিযোগকারী তরুণীকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে পাঠানো হয়েছে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here